সাড়ে সাত কোটি ২০ মিনিটেই!

0
141

প্রতি ঈদে সালমান খান ভক্তদের উপহার দেন নতুন কোন ছবি। ২০২০ সালে এই সাল্লু ভাইয়ের ঈদের ছবির নাম ‘রাধে’। নানা বিতর্ক ছাপিয়ে ‘রাধে’ এখন আলোচনায় নতুন কারণে। এই সিনেমার ক্লাইম্যাক্সে ২০ মিনিটের একটি দৃশ্যের জন্য নাকি প্রযোজকের পকেট থেকে চলে গেছে সাড়ে সাত কোটি রুপি।    মিড ডের প্রতিবেদনে বিষয়টি উঠে এসেছে।

 

মুম্বাইয়ের একটি স্টুডিওতে ক্রোমা কি টেকনোলজি ব্যবহার করে সম্প্রতি সালমান খান আর রণদীপ হুদা অভিনীত এই অংশের দৃশ্যধারণ করা হয়েছে। এর সঙ্গে যুক্ত হবে ভারী ভিএফএক্সের কাজ। মিড  ডেকে দেয়া  এক সাক্ষাৎকার এর সূত্র বলে, ‘ক্রোমা কিতে শুটিং করা খুবই খরচসাপেক্ষ বিষয়। কেবল মোটা পকেটের প্রযোজকদের পক্ষেই সেটি সম্ভব। ‘বাহুবলী’  আর ‘বাহুবলী টু’ তেও এই প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছিল। ক্রোমার জন্য যে ধরনের আলোর প্রয়োজন পড়ে সেটা খুবই দামী। নীল বা সবুজ ব্যাকগ্রাউন্ড এ শুটিং হয়। আর ভিএফএক্সে পুরো ব্যাকগ্রাউন্ড ডিজিটালি আমাদের পছন্দ মত পরিবর্তন করা হয়েছে’।

 

‘রাধে’ র দিল্লি, কলকাতা, জয়পুর ও লক্ষনৌ অংশের শ্যুটিং শেষ। এখন কেবল দুবাই অংশের শুটিং বাকি। সালমান খান এই দৃশ্য করার আগে ভিএফএক্স দলের সঙ্গে কথা বলে নিয়েছিলেন। তারা জানায় , সাত কোটি ছাড়িয়ে যাবে খরচ। সালমান সবুজ সংকেত দৃশ্যটি এভাবেই ধারণ করা হয়। দৃশ্যটির জন্য এই খরচ  মোটেও বেহুদা বা অপচয় নয়। তার বিশ্বাস, দৃশ্যটি যথেষ্ট আলোচনার জন্ম দেবে। আর এই অর্থ বহুগুণে উঠে আসবে।

 

প্রভু দেবা পরিচালিত ‘রাধে’ ছবির অন্যতম প্রযোজক সালমান খান। আর ছবিতে সালমানের সঙ্গে পর্দা ভাগ করবেন দিশা পাটানি , জ্যাকি শ্রফ , রণদীপ হুদা , তামিল তারকা ভারত , গৌতম গুলাটি , জরিনা ওয়াহাব সহ অনেকে। আইটেম গানে দেখা যাবে জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজকে।  ছবিটি মুক্তি পাবে ২২ মে।