ত্রিশ হাজার নারী জাপানি ধনকুবেরের চাঁদ সঙ্গী হতে চান

0
105

চাঁদে যেতে জীবনসঙ্গীর খোঁজে নেমেছিলেন জাপানের ধনকুবের ইউসাকু মেইজাওয়া । অনলাইনে বিজ্ঞাপনও দিয়েছিলেন। মাত্র কয়েকদিনের ব্যবধানে আবেদন জমা পড়ে প্রায় ৩০ হাজার নারীর। জীবনসঙ্গী নির্বাচনে টেলিভিশন শো করারও প্রস্তুতি চলছিল। ঠিক এর মধ্যেই হঠাৎ করে সঙ্গী খোঁজার এই অভিযান থেকে সরে এসেছেন ইউসাকু।

 

যুক্তরাষ্ট্রের বেসরকারি মহাকাশ পরিবহন প্রতিষ্ঠান স্পেস এক্সের প্রধান ঘোষণা দিয়েছেন, ২০২৩ সাল কিংবা তার কিছুদিন পর চাঁদে প্রথমবারের মতো মানুষ পরিবহন করবে তার প্রতিষ্ঠান। এই অভিযানে যাওয়ার কথা রয়েছে জাপানের ৪৪ বছর বয়সী ধনকুবের মেইজাওয়ার।

 

তবে মেইজাওয়া একা চাঁদের পথে পাড়ি জমাতে চাইছিলেন না। জীবনের শ্বাসরুদ্ধকর বিশেষ এই অধ্যায়ে পাশে চেয়ে ছিলেন এমন একজনকে, যিনি হবেন তার জীবনসঙ্গী। চলতি মাসের গোড়ার দিকে নিজের ওয়েবসাইটে এক ব্লগ পোস্টে এই ইচ্ছার কথা জানিয়ে আগ্রহীদের কাছে জীবন বৃত্তান্ত চেয়েছিলেন মেইজাওয়া। এরপর গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত তার জীবনসঙ্গী হতে আগ্রহ প্রকাশ করে জীবন বৃত্তান্ত পাঠিয়েছেন ২৭ হাজার ৭২২ জন নারী। কিন্তু ওই দিনই ব্যক্তিগত কারনের কথা উল্লেখ করে মেইজাওয়া জানান, তিনি এখন আর জীবনসঙ্গীর অনুসন্ধান করছেন না।

 

বৃহস্পতিবার টুইটারে মেইজাওয়া তার জীবনসঙ্গী অনুসন্ধানের বিষয়ে পরিকল্পিত টিভি শোর কথা উল্লেখ করে লেখেন এতে অংশগ্রহণের ব্যাপারে আমার একাংশ এখনো সায় দেয়নি। মূল্যবান সময় ব্যয় করে ২৭ হাজার ৭২২ জন নারী ও স্থির সংকল্প নিয়ে আবেদন করেছেন। তাদের নিরাশ করার জন্য আমি চরমভাবে অনুতপ্ত।